dannews24.com | logo

৭ই আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ২১শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

রাজশাহীতে সার্জেন্টের ওপর হামলাকারি নাটোর থেকে গ্রেপ্তার

প্রকাশিত : জানুয়ারি ২১, ২০২১, ১০:৫৩

রাজশাহীতে সার্জেন্টের ওপর হামলাকারি নাটোর থেকে গ্রেপ্তার

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজশাহীতে ট্রাফিক পুলিশের সার্জেন্ট সার্জেন্ট বিপুল ভট্টাচার্যর উপরে ওপর হামলার ঘটনায় হামলাকারী বেলাল হোসেনকে নাটোর থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার রাত ১টার সময় নাটোর হরিশপুর বাইপাস এলাকা থেকে তাকে আটক করেন বোয়ালিয়া মডেল থানা পুলিশ। এর আগে গত মঙ্গলবার রাতে নগরীর রাজপাড়া থানায় মামলাটি রুজু হয়েছে। মামলার বাদী আহত ট্রাফিক সার্জেন্ট বিপুল ভট্টাচার্য নিজেই।

মামলার একমাত্র আসামি হামলাকারি বেলাল হোসেন (২৬)। নগরীর লক্ষ্মীপুর ভাটাপাড়া এলাকায় তার বাড়ি। বাবার নাম শামসুল হক। বেলাল একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করেন। সার্জেন্ট বিপুল এখন রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। সেখান থেকেই তিনি মামলার এজাহারে স্বাক্ষর করেন বলে জানিয়েছেন রাজপাড়া থানার ওসি মাজহারুল ইসলাম।

রাজশাহী মহানগর পুলিশের (আরএমপি) মুখপাত্র গোলাম রুহুল কুদ্দুস জানান, হামলার ঘটনার পর প্রত্যক্ষদর্শী দুইজনকে ঘটনাস্থল থেকে থানায় নিয়ে যাওয়া হয়। তাদের মামলার সাক্ষী করা হয়েছে। তারা পুলিশকে সহায়তা করছেন। পরে বৃহস্পতিবার নাটোর থেকে আসামীকে গ্রেফতার করা হয়।

এর আগে মঙ্গলবার দুপুর দেড়টার দিকে মহানগরীর বিলশিমলা ঐতিহ্য চত্বরে সার্জেন্ট বিপুলের ওপর হামলার ঘটনা ঘটে। তার দুই হাতে জখম হয়েছে। এছাড়া শরীরের বিভিন্ন অংশে আঘাত পেয়েছেন তিনি। হেলমেট না পরা এবং মোটরসাইকেলের কাগজপত্র না থাকার কারণে মামলা দিতে শুরু করলে আচমকা চেলাকাঠ নিয়ে এসে তার ওপর হামলা করেন বেলাল হোসেন।

দুপুরে হাসপাতালে সার্জেন্ট বিপুলকে দেখতে গিয়ে আরএমপি কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিক সাংবাদিকদের বলেন, বেলালের মোটরসাইকেলের কাগজপত্র ছিল না। সেটি জব্দ করা হয়েছে। বেলাল সার্জেন্ট বিপুলকে মেরে ফেলার চেষ্টা করেছিলেন। এ নিয়ে কঠোর আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।






অফিস: হোল্ডিং#৩৫৯,রোড# ৮/২ মধ‍্য সরদারপাড়া, দুপচাঁচিয়া, বগুড়া।

সম্পাদক ও প্রকাশক: মো: মোছাব্বর হাসান মুসা। 01711366298/01812550877 mushanews2011@gmail.com

নির্বাহী সম্পাদক
ইমরানুল হাসান (বি এ অনার্স) ম‍্যানেজমেন্ট।

 

বার্তা সম্পাদক: মো:জাকারিয়া হাসান। 01796032336

মহিলা সম্পাদিকা: মোনিকা আক্তার মালা। ( বিএ অর্নাস) রাষ্ট্রবিজ্ঞান।